মেধা ও যোগ্যতার ভিত্তিতে ময়মনসিংহে পুলিশ সদস্য নিয়োগ চুরান্ত।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

বদরুল আমীন ময়মনসিংহ।

চাকরি নয় সেবা এই শ্লোগানে বাংলাদেশ পুলিশের ইতিহাসে এই প্রথমবারে ময়মনসিংহ জেলায় কোন রাজনৈতিক বিবেচনা ও অনৈতিক সুযোগ সুবিধা ছাড়াই মেধা ও যোগ্যতা বিবেচনায় ১১৫ জন তরুণ- তরুণীর পুলিশে চাকরি দেয়ার চুরান্ত বাছাই শেষ হয়েছে।

এদের মধ্যে ১১৫ জন পুরুষ – নারী সদস্য রয়েছে। অপেক্ষমান রয়েছে আরো ৩৫ জনের মত। মেডিকেল বা পুলিশের তদন্তে কেউ বাদ পড়লে অপেক্ষমান তালিকা থেকে যুক্ত হবেন প্রার্থীর বাছাই পর্বে ৬ ধাপে শারিরীক পরীক্ষা বাদেও লিখিত পরীক্ষা নেয়া হয়। দৌড়, লম্বা লাফ, উচ্চ লাফ, উজন টানা, রশি ধরে উপড়ে উঠা ও লিখিত পরীক্ষা, মৌখিক পরীক্ষা রয়েছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার ৪ নবেম্বর রাত ১১ টায় পুলিশ লাইন্স এ আনুষ্ঠানিক ভাবে যোগ্যদের নাম ঘোষণা করেন নিয়োগ প্রধান এসপি মোহাম্মদ আহমার উজ্জামান পিপিএম (বার) এ সময় উপস্থিত ছিলেন নিয়োগ পরীক্ষা বোর্ডের সদস্য নেত্রকোনা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আল আমীন, জামালপুর জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জাকির ও জেলার উর্ধতন পুলিশ কর্মকর্তা বৃন্দ। উত্তীর্ণ প্রার্থীদের শুভেচ্ছা জানান এসপি মোহাম্মদ আহমার উজ্জামান পিপিএম (বার)।

পুলিশের আইজিপি ড: বেনজীর আহমেদ বিপিএম(বার) উদ্যোগে শারীরিক সক্ষমতা ও মেধার ভিত্তিতে এবং সম্পূর্ণ স্বচ্ছতার সাথে ময়মনসিংহ জেলার পুলিশের “ট্রেইনি রিক্রুট কনস্টেবল পদে নিয়োগ লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষায় চূড়ান্ত ভাবে উত্তীর্ণ প্রার্থী পুলিশে চাকরি পেয়েছে। এটাকে বর্তমান সরকারের সাফল্য হিসেবে দেখছে পুলিশ বাহিনী।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

আরো পড়ুন

সর্বশেষ খবর

পুরাতন খবর

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১