আজ ৯ই ফেব্রুয়ারি, ২০২৩, বিকাল ৩:১৩

মুক্তিযোদ্ধারা দেশের সূর্যসন্তান- নতুন ডিসি

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

মাহদী হাসান।।

কুমিল্লায় সদ্য যোগদানকৃত জেলা প্রশাসক জনাব মোহাম্মদ শামীম আলমের সাথে মুক্তিযোদ্ধাদের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। কুমিল্লায় যোগদান করে প্রথমেই তিনি কুমিল্লা জেলার মুক্তিযোদ্ধা নেতৃবৃন্দের সাথে মতবিনিময় করেন। অনুষ্ঠানের শুরুতে জেলা প্রশাসকের সাথে পরিচিত হন উক্ত সভার সকল মুক্তিযোদ্ধা অতিথিবৃন্দ। পরিচয় পর্ব শেষে কমান্ডার সফিউল আহমেদ বাবুল নতুন জেলা প্রশাসক মহোদয়কে স্বাগত জানিয়ে বলেন,

মুক্তিযোদ্ধাদের সাথে মতবিনিময় করছেন নতুন জেলা প্রশাসক মহোদয়

 

আমি আমার জন্য কখনোই কোন কিছু চাইনি। আমাদের নতুন জেলা প্রশাসকের কাছে আমার একটাই দাবী আমার মুক্তিযোদ্ধারা যেকোন যৌক্তিক দাবী নিয়ে আসলে তিনি যেন তার সঠিক মূল্যায়ন করেন। নতুন জেলা প্রশাসক তার বক্তব্যে বলেন, আমি এমন একটি দিনে কুমিল্লায় যোগদান করেছি যে দিন মুক্তিযোদ্ধারা এই অঞ্চলটিকে পাক-হানাদার মুক্ত করেছিলেন। এবং আমার প্রথম যে অনুষ্ঠানে যোগদান সেটি হলো কুমিল্লা মুক্ত দিবসের। কুমিল্লা শিক্ষা, সংস্কৃতির একটি উর্বর ভূমি। এখানে আসার পরই মানুষের মার্জিত আচরণ আমাকে মুগ্ধ করেছে।আমি এর আগে যেখানেই ছিলাম সেখানেই মুক্তিযোদ্ধাদের সর্বদিক দিয়ে অগ্রাধিকার দিয়েছি। মুক্তিযোদ্ধাদের দীর্ঘ নয় মাসের পরিশ্রমে এবং আমাদের মা-বোনদের সম্ভ্রমের বিনিময়ে এদেশ স্বাধীন হয়েছে। যার ফলে আমি স্বাধীন দেশে একজন সরকারি কর্মকর্তা হিসেবে কাজ করতে পারছি। আগামী কয়েক বছর পর হয়ত মুক্তিযোদ্ধাদের পাওয়া দুস্কর হবে। তবে আমি দোয়া করি মুক্তিযোদ্ধারা কালের স্বাক্ষী হয়ে বেচে থাকুক। তাহলে নতুন প্রজন্ম আপনাদের থেকে কিছু শিখতে ও জানতে পারবে।জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অপূর্ণ স্বপ্ন বাস্তবায়নে এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে কাজ করে যাবো। আশা করি মুক্তিযোদ্ধারাও আমার এ কাজে সঙ্গী হবেন। বক্তব্যের এক পর্যায়ে তিনি মুক্তিযুদ্ধের বিভিন্ন ইতিহাস ও তার এলাকা ভূয়াপুরের কিছু রণক্ষেত্রের ঘটনা উল্লেখ করে ‍মুক্তিযোদ্ধাদের বলেন, যে কোন রাষ্ট্রে মুক্তিযুদ্ধ একবারই হয়। দীর্ঘ ৪৩ বছর পাকিস্তানী শাসনের বিরুদ্ধে বাঙ্গালীর প্রতিবাদ ও স্বাধীন দেশের স্বপ্ন পূরণ করেছিলেন মুক্তিযোদ্ধারা। তাই আমি যোগান করেই প্রথমেই মুক্তিযোদ্ধাদের সাথে বসার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আমি আশা করি যেদিন বাংলাদেশের ১০০ বছর পূর্ণ হবে সেদিনও যেন অন্তত একজন মুক্তিযোদ্ধা জীবিত থাকেন এবং সেই মাহেন্দ্রক্ষণে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস নতুন প্রজন্মের কাছে ব্যক্ত করেন। গতকাল শনিবার সকাল সাড়ে দশটায় জেলা প্রশাসনের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত মুক্তিযোদ্ধাদের সাথে মতবিনিময় সভায় এসব কথা বলেন জেলা প্রশাসক জনাব মোহাম্মদ শামীম আলম। এসময় বিপুল সংখ্যক মুক্তিযোদ্ধানেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

আরো পড়ুন

সর্বশেষ খবর

পুরাতন খবর

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮