আজ ২৮শে সেপ্টেম্বর, ২০২২, সকাল ৬:৪৯

আগামী সিটি নির্বাচনের কাউন্সিলর প্রত্যাশী একজন সমাজসেবক রোটারিয়ান আবুল হোসেন ছোটন।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

মনির হোসেন।

কাউন্সিলর পদপ্রার্থী রোটারীয়ান আবুল হোসেন ছোটন বলেন, আমি মানুষের পাশে দাঁড়ানোকে সর্বোচ্চ রাজনীতি বলে মনে করছি। আমি মনে করি আমার প্রিয় নেতা আ.ক.ম বাহাউদ্দিন বাহার এমপির হাতকে শক্তিশালী করতে আমার ক্ষুদ্র প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে। করোনাভাইরাসের কারণে ১নং ওয়ার্ডের বিভিন্ন এলাকায় কর্মহীন হয়ে পড়েছিল শত শত মানুষ।

বিশেষ করে খেটে খাওয়া নিন্ম আয়ের লোকজন সবচে বেশি ভোগান্তিতে ছিলো যারা দিন এনে দিন খেতেন এমন মানুষজন খাদ্য সংকটে পড়েছিল বেশিরভাগ।পরে এই করোনাকালে মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছিল তিনি। তার কর্মীদের দিয়ে এসব খেটে খাওয়া মানুষের ঘরের দরজায় পৌঁছে দেন খাদ্য সহায়তা। তারা প্রথমে এলাকার অভাবি লোকদের চিহ্নিত করেন।

পরে রাতের আঁধারে ও খুব ভোরে মানুষজন ঘুম থেকে জেগে ওঠার আগেই ওইসব নিন্ম আয়ের লোকদের দরজার সামনে পৌঁছে দিচ্ছেন খাদ্য সামগ্রী। তাই সকল প্রকার জনসমাগম ও ভিড় এড়িয়ে তিনি নিজে ও কর্মীরা রাত পোহানোর আগেই খুব ভোরে কর্মহীন, অসহায় ও নিন্ম আয়ের লোকদের ঘরের দরজার সামনে খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দিচ্ছেন।

রোটারীয়ান আবুল হোসেন ছোটন মানবতার ফেরিওয়ালা হিসেবে এখন পরিচিত। সেই ধারাবাহিকতায় করোনা যুদ্ধেও এখন সক্রিয় অবস্থানে তিনি। খাদ্য সংকটে থাকা এসব মানুষের পাশে আশার আলো হয়ে দাঁড়াচ্ছে তিনি।

করোনা প্রাদুর্ভাবের পর থেকেই জরুরি বৈঠক করে মানুষের পাশে দাঁড়ানোর জন্য সিদ্ধান্ত নেয় তিনি। সাধারণ মানুষের পাশে দাঁড়িয় ছিলেন তিনি। মানবতার ফেরিওয়ালা হিসেবে আলো ছড়াচ্ছে রোটারীয়ান আবুল হোসেন ছোটন। নিজ উদ্যোগে খেটে খাওয়া মানুষের দ্বারে দ্বারে গিয়ে তুলে দিয়েছিলো খাবার। আর তাদের সচেতনতায় দিচ্ছেন মাস্ক হ্যান্ড স্যানিটাইজার সাবান।

এবিষয়ে কাউন্সিলর পদপ্রার্থী রোটারীয়ান আবুল হোসেন ছোটন বলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে ও এমপি আ.ক.ম বাহাউদ্দিন বাহারের নেতৃত্বে আমার অবস্থান থেকে কাজ করে ছিলাম মানুষের জন্য। ব্যক্তিগত উদ্যোগে এলাকার অধিকাংশ পরিবারের কাছে খাদ্য পৌঁছে দিয়েছিল বলে জানা গেছে। তার খাদ্যতালিকায় ছিল চাল, ডাল, আলু, তেল, পেঁয়াজ লবণসহ বিভিন্ন প্রকার সবজি নেতাকর্মীরা বলছেন আমাদের প্রিয় নেতার।

এমন ব্যক্তিগত উদ্যোগগুলোতে ভালো থাকছেন শত শত পরিবার। তার অনুপ্রেরণা পেয়ে অনেকেই এখন মানবতার ফেরিওয়ালা হিসেবে চিনেন তাকে। অনাহারে-অর্ধাহারে থাকা মানুষগুলো তার উপহার এখনো পাচ্ছেন। যেখানে থাকছে করোনা সুরক্ষার মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজারসহ খাদ্যসামগ্রী। আর এখন চারদিকে আলোচনায় এসেছে তাঁর নাম।

তার নেতৃত্বে ছুটে চলছে মানবিক সহায়তা। একেবারে তৃণমূলে সার্বিক পরিস্থিতির কথা তুলে ধরে তিনি জানালেন সাধারণ মানুষ তার আপনজন। বিশেষ করে সমাজের ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য দিন রাত অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। সকল জনগণের সাথে রয়েছে তার খুব ভাল যোগাযোগ।

তার রাজনৈতিক যোগ্যতার পরিচয় ও দক্ষতার তৃণমূলের একজন কর্মী থেকেই আজকে ১নং ওয়ার্ডের সমাজসেবক হিসেবে পরিচিত। সততার সঙ্গে রাজনীতি করে আসছে তিনি। দলের ত্যাগী নেতা হিসেবে কাউন্সিলর পদে দেখতে চায় জনগণ।
জানা গেছে।

কুমিল্লা মহানগর আওয়ামীলীগের রাজনৈতিক দলের জন্য সে সর্বোচ্চ ত্যাগ করতেও প্রস্তুত পারিবারিক ভাবে যারা বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ধারন করেন ও নিজেকে সেই হিসেবে গড়ে তুলতে পারে তাদেরকেই পছন্দ করেন তিনি। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও নেত্রী শেখ হাসিনার রাজনীতির আদর্শ ধরে রাখবে বলে জানিয়েছেন নেতাকর্মীরা।
জানা গেছে।

রোটারীয়ান আবুল হোসেন ছোটন নিজেকে সব সময় সধারণ মানুষেরই একজন মনে করে। তার নেতাকর্মীরা সাধারণ মানুষের পাশে থেকে তাদের সব ধরনের সহায়তা দেয়ার চেষ্টা করে যাচ্ছেন। তিনি বঙ্গবন্ধুর আদর্শে উজ্জীবিত সৈনিক। এবং তরুণ প্রজন্মের বাতিঘর। তিনি ১নং ওয়ার্ডের জনগণের গৌরব।

তিনি নৈতিক গুণসম্পন্ন দক্ষ সাংগঠনিক শক্তির অধিকারী ব্যক্তিত্বসম্পন্ন একজন মানবিক নেতা ও নিবেদিত প্রাণ। তিনি তাঁর রাজনৈতিক কর্মতৎপরতা, প্রগতিশীল চিন্তাভাবনা, মুক্তিযুদ্ধের চেতনাধারণকারী, সৃষ্টিশীল কাজে উদ্যোগী অন্যায়ের বিরুদ্ধে আপোষহীন এবং সামাজিক ন্যায়পরায়ন ব্যক্তি হিসেবে।

আজকের এই সময়ে একজন যোগ্য কাউন্সিলর পদপ্রার্থীর উদাহরণ। তাঁর নেতৃত্বদানের ক্ষমতা নেতৃত্বের গুনাবলী সৎচ্চরিত্রাবলী এবং রাজনৈতিক জীবনের বিশাল কর্মযজ্ঞই প্রমাণিত করে তিনি রাজনৈতিক মাঠের একজন কর্মদক্ষ নেতা।

সে ছাত্রাবস্থা থেকেই জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের রাজনৈতিক জীবনের আদর্শকে লালন করে তিনি তাঁর রাজনৈতিক জীবন গড়েছেন তাঁর এই নৈতিক গুনাবলীর জন্যই আজকের রাজনীতির মাঠে তিনি একজন জননন্দিত জনপ্রিয় তরুণ নেতা হিসেবে সকলের নিকট পরিচিত।

অনেকজনের সঙ্গে আলাপকালে তারা বলেন এমন একজন সমাজসেবক পেরে আমাদের অহংকার হয়, আমরা গর্ব করি। উনার আরও বলেন তার নিকট যেকোনো সাধারণ নাগরিক যেকোন ধরনের সহযোগীতার জন্য তাঁর নিকট স্মরনাপন্ন হলে।

তিনি তাদেরকে শূন্য ফিরিয়ে দেননি। তিনি করে দেন তাঁর সহযোগিতা। একজন মানবিক ও বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সৈনিক নেতা হিসেবে পরিচিত। তিনি তরুণ প্রজন্মকে গুরুত্ব দিয়েছেন। তিনি দীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনে কখনো দলএবং দলের নেতাকর্মীর সাথে বিশ্বাস ভঙ্গ করেননি। তাঁর দলের প্রতিটি সদস্যকে নিজের পরিবারের মতো করেন।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

আরো পড়ুন

সর্বশেষ খবর

পুরাতন খবর

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০